রামু উপজেলা পরিষদে পাবলিক টয়লেট উদ্ভোধন করলেন ইউএনও প্রণয় চাকমা


coxmorning প্রকাশের সময় : জুন ৬, ২০২১, ৭:১৮ অপরাহ্ন /
রামু উপজেলা পরিষদে পাবলিক টয়লেট উদ্ভোধন করলেন ইউএনও প্রণয় চাকমা

প্রেস বিজ্ঞপ্তি : আন্তর্জাতিক মানবিক সহায়তা সংস্থা কেয়ার বাংলাদেশের উদ্যোগে ইউএসআইডির অর্থয়নে আশার আলো প্রকল্পের আওতায় রামুর উপজেলা পরিষদে নির্মিত পাবলিক টয়লেট উদ্ভোধন করেন রামু উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা প্রণয় চাকমা, রবিবার ০৬ জুন সকাল ১১টায় রামু উপজেলা পরিষদে এই উদ্বোধনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।এসময় উপস্থিত ছিলেন কেয়ার বাংলাদেশের ডেপুটি কান্ট্রি ডিরেক্টর (হউমেনিটেরিয়ান ও রিজিলিয়েন্স) রাম দাশ , সহকারী কমিশনার ভূমি মোহাম্মদ সরুয়ার,প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা ফরহাদ ইকবাল, রামু উপজেলা পরিয়দের উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান, মো. সালাউদ্দিন, সাংবাদিক নুরুল ইসলাম সেলিম, আবদুল মালেক সিকদার, কেয়ার বাংলাদেশের হোস্ট কমিউনিটি সিনিয়র টিম লিডার, ইমামুল হক, কেয়ার বাংলাদেশ আশার আলো প্রকল্পের প্রজেক্ট কো-অরডিনেটর মাহমুদ হাসান, গড় লিয়াজো ম্যানেজার,কে,বা, দুলারী ইকবাল, টেকনিক্যাল ম্যানেজার, ডি আর আর ও ওয়াশ, আশার আলো প্রকল্পের, কে,বা মাকসুদা সুলতানা,সিনিয়র কমিউনিকেশন অফিসার নাহিদা আরেফিন নিতু,সিনিয়র প্রোগ্রাম অফিসার নূরে আলম সিদ্দিকী, মোহাম্মদ নাজমুল হুদা,মেহেদী হাসান,তাজি রুল ইসলামসহ রামুর উপজেলার বিভিন্ন সরকরি কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে রামু উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা প্রণয় চাকমা বলেন, “আমি আন্তরিকভাবে ধন্যবাদ জানাচ্ছি কেয়ার বাংলাদেশকে রামু উপজেলা পরিষদে এই পাবলিক টয়লেটের সেবা নিশ্চিত করে দেয়ার জন্য। উপজেলা পরিষদের স্টাফ এবং সাধারণ জনগন এই পাবলিক টয়লেটের ফলে উপকৃত হবে। আমি নিজে এই পাবলিক টয়লেট নির্মনের কাজ পর্যবেক্ষণ করেছি এবং আমি পুরোপুরি সন্তুষ্ট কাজের মান নিয়ে। আমি ভবিষ্যতেও কেয়ার বাংলাদেশের কাছ থেকে রামু উপজেলা পরিষদ ও রামুর জনগণের জন্য এ ধরণের আরো সহযোগীতা প্রত্যাশা করছি। কেয়ার বাংলাদেশের ডেপুটি কান্ট্রি ডিরেক্টর রাম দাশ বলেন, “এই পাবলিক টয়লেট স্থাপনের ফলে রামু
উপজেলা পরিষদে সেবা নিতে আসা রামুর বাসিন্দাদের দুর্ভোগ অনেক কমে যাবে বলে আমরা আাশা করছি। বিশেষ করে সেবা নিতে আসা নারীদের জন্য টয়লেট ব্যবহারে এটি বড় সুবিধা তৈরি করবে। কেয়ার বাংলাদেশ কক্সবাজারের বিভিন্ন উপজেলায় স্থানীয় জনগণের দুর্ভোগ লাঘব এবং নারী ও কিশোরীদের অবস্থা উন্নয়নের জন্য কাজ করে যাচ্ছে। আমরা এ কার্যক্রম অব্যাহত রাখার চেষ্ঠা করবো।
আর এ কাজে আর্থিক সহায়তা করার জন্য ইউএসআইডি-কে আমি ধন্যবাদ জানাচ্ছি আরো ধন্যবাদ জানাচ্ছি রামু উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা প্রণয় চাকমা।