সুদানের গার্লস স্কুলে জাতির পিতার ছবি সম্বলিত শিক্ষা উপকরণ বিতরণ

প্রকাশিত: ৬:৪৬ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২২, ২০২০
প্রেস বিজ্ঞপ্তি:    সুদানের দারফুর প্রদেশের এল ফাশেরে আল জানাহ গার্লস স্কুলে আজ বাংলাদেশ ফর্মড পুলিশ ইউনিটের পক্ষ থেকে মুজিব বর্ষ উপলক্ষে জাতির পিতার ছবি সম্বলিত সহস্রাধিক শিক্ষা উপকরণ বিতরণ করা হয়।  এই  শিক্ষা উপকরণ বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন উনামিডের পুলিশ চিফ  অফ স্টাফ জেনারেল আহমাদো মান্না, বিশেষ অতিথি ছিলেন সুদান পুলিশ ফোর্সের লিয়াজো অফিসার কর্নেল আমির  ও স্কুলের প্রধান শিক্ষিকা মালাক মোহাম্মদ।
এল ফাশেরে  বাংলাদেশ ফর্মড পুলিশ ইউনিটের স্কুলে এটি ২য় বারের মত ডোনেশন প্রোগ্রাম । প্রদান অনুষ্ঠানে আলোচনা সভায় স্কুলের প্রধান শিক্ষিকা মালাক মোহাম্মদ শিক্ষা উপকরণ প্রদানের জন্য বাংলাদেশ পুলিশকে ধন্যবাদ প্রদান করেন। তিনি বলেন এই প্রথম কোন বিদেশী সংস্থা আমাদের ছাত্রীদের শিক্ষার উন্নয়নে এগিয়ে এসেছে যা ইতিহাসে স্বর্নাক্ষরে লিখা থাকবে।
ব্যানএফপিইউ কমান্ডার মোহাম্মদ আব্দুল হালিম  মহান মুক্তিযুদ্ধে  ও বাংলাদেশ সৃষ্টিতে জাতির পিতার অবদানের কথাকে তিনি শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করেন এবং ছাত্রী ও উপস্থিত ব্যাক্তিবর্গের সামনে জাতির পিতার সম্পর্কে ধারনা প্রদান করেন। উনামিড চিফ অফ স্টাফ জেনারেল আহমাদো মান্নাহ আজকের শিক্ষা উপকরণ প্রদান অনুষ্ঠানকে ঐতিহাসিক দিন বলে আখ্যা দেন। তিনি বলেন অতীতে কোন দেশের প্রতিনিধি দারফুরের এল ফাশেরে কোন স্কুলে বই প্রদান করেন নি। বাংলাদেশ পুলিশের একটি ইউনিট শান্তিরক্ষা মিশনে এসে শান্তিরক্ষা প্রতিষ্ঠার কাজের পাশা-পাশি স্কুলে শিক্ষার্থীদের শিক্ষা সামগ্রী প্রদানের দিনটি মাইলফলক হিসাবে উনামিডের ইতিহাসে থাকবে বলে উল্লেখ করেন। সুদান পুলিশ ফোর্সের লিয়াজো অফিসার কর্নেল আমির তার বক্তব্যে বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠার কারিগড় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে শ্রদ্ধা ভরে স্মরণ করেন এবং জাতির পিতাকে পরিচিতিমূলক কাজ করার জন্য কমান্ডার মোহাম্মদ আব্দুল হালিম ও তার ইউনিটকে ধন্যবাদ জানান। তিনি আহবান করেন বাংলাদেশ পুলিশ যেন ভবিষ্যতে এই ধরনের কার্য্যক্রম এই এলাকায় অব্যহত রাখে।
বাংলাদেশ ফর্মড পুলিশ ইউনিটের ডেপুটি কমান্ডার নাজলি সেলিনা ফেরদৌসি জানান বাংলাদেশ পুলিশ সুদানের যুদ্ধ বিধস্ত প্রদেশ দারফুরে আর্থ সামাজিক উন্নয়নে ব্যাপক ভূমিকা পালন করে যাচ্ছে। ইতিমধ্যে এই ইউনিটের কমান্ডারের প্রচেষ্টায় বৃক্ষ রোপণ, স্কুলগুলোতে শিক্ষা সামগ্রী বিতরণ, অবহেলিত বাস্তুচুত্য মহিলাদের বিভিন্ন আয়মূলক কর্মশালা প্রদান, সুদান গস পুলিশকে প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়েছে। শিক্ষা উপকরণ প্রদান অনুষ্ঠানে্র পর স্কুলের ছাত্রীদের কর্তৃক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান আয়োজন করা হয়।